আপনাকে এবং আপনার পরিবারকে জানাই ঈদ উল আযহার শুভেচ্ছা। বাংলা তথ্য ভান্ডার সমৃদ্ধ করতে আমাদের এই প্রয়াস। ইতিহাস এবং ঐতিহ্যর তথ্য দিতে চাইলে ক্লিক করুন অথবা ফোন করুনঃ- ০১৯৭৮ ৩৩ ৪২ ৩৩

Select your language

আলহাজ্ব কে এম আব্দুল খালেক চন্টু
আলহাজ্ব কে এম আব্দুল খালেক চন্টু

খাতের আলী কলেজ ও এইচএন উচ্চ বিদ্যালয় এর প্রতিষ্ঠাতা

আলহাজ্ব কেএম আব্দুল খালেক চন্টু বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল [বিএনপি] মনোনীত প্রার্থী হিসাবে ১৯৯১ এর জাতীয় সংসদ, কুষ্টিয়া ৩ আসনে নির্বাচিত সংসদ সদস্য।

১৯৪৬ সালের পহেলা জানুয়ারী তিনি জন্মগ্রহন করেন। পিতার নাম মরহুম খাতের আলী। জনাব চন্টু ১৯৬৩ সালে রংপুর জেলা স্কুল থেকে এসএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হন। ১৯৬৮ সালে রংপুর কলেজ থেকে বিএ পাশ করেন।

তিনি ছাত্র জীবন থেকেই জড়িয়ে পড়েন ছাত্র রাজনীতির সংগে। তিনি মজলুম জননেতা মাওলানা আবদুল হামিদ খান ভাসানী সমর্থিত ছাত্র ইউনিয়নের সক্রিয় সদস্য ছিলেন। ছাত্র জীবন শেষে তিনি ভাসানী ন্যাপ এ যোগদান করেন এবং পরবর্তিতে ন্যাপ এর জেলা সদস্য নির্বাচিত হন। ১৯৭৮ সালে আলহাজ্ব কেএম আব্দুল খালেক চন্টু জাতীয়তাবাদী দলে যোগদান করেন।

১৯৯১ সালে জাতীয় সংসদ সদস্য নির্বাচনে তিনি জাতীয়তাবাদী দল থেকে মনোনয়ন লাভ করেন এবং সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। তিনি ১৯৯৬ সালে কুষ্টিয়া ৩ আসন থেকে জাতীয় সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

আলহাজ্ব কেএম আব্দুল খালেক চন্টু সক্রিয় রাজনীতির পাশাপাশি সামাজিক কর্মকান্ডেও জড়িত। এলাকার জনগনকে শিক্ষিত করে তোলার প্রয়োজনীয়তা অনুভব করেই তিনি একক প্রচেষ্টায় গড়ে তুলেছেন সমাজ উন্নয়ন পরিষদ। এই প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি তিনি। তিনি খাতের আলী কলেজ, এইচএন উচ্চ বিদ্যালয় এবং খাতের আলী দাখিল মাদ্রাসারও প্রতিষ্ঠাতা।

আলহাজ্ব কেএম আব্দুল খালেক চন্টু ১৯৭৪ সালের ১৭ই এপ্রিল বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন এবং ৩ পুত্র ও ১ কন্যার জনক তিনি।

Add comment

কুষ্টিয়া সম্পর্কিত তথ্য

সর্বশেষ পেতে সাবস্ক্রাইব করুন

তথ্য সম্পর্কে খবর

আমাদের নিউজলেটার সাবস্ক্রাইব করুন এবং আপডেট থাকুন
আমরা কুকিজ ব্যবহার করি
আমরা আমাদের ওয়েবসাইটে কুকিজ ব্যবহার করি। তাদের মধ্যে কিছু সাইট পরিচালনার জন্য অপরিহার্য, অন্যরা আমাদের এই সাইট এবং ব্যবহারকারীর অভিজ্ঞতা উন্নত করতে সাহায্য করে (কুকিজ ট্র্যাক করা)। আপনি কুকিজকে অনুমতি দিতে চান কিনা তা আপনি নিজেই সিদ্ধান্ত নিতে পারেন। দয়া করে মনে রাখবেন যে আপনি যদি সেগুলি প্রত্যাখ্যান করেন তবে আপনি সাইটের সমস্ত কার্যকারিতা ব্যবহার করতে পারবেন না।